tatarider itihas (তাতারিদের ইতিহাস )

তাতারিদের ইতিহাস

তাতারীদের ইতিহাস গ্রন্থটি ষষ্ঠ শতাব্দির মুসলিম সামরাজ্যের উপর ধেয়ে আসা তাতারী আগ্রাসনের ইতিহাস নিয়ে রচিত একটি অনবদ্য গ্রন্থ। বিখ্যাত ইতিহাসবিদ ড. রাগেব সারাজানির অনন্য সৃষ্টি এই বক্ষ্যমাণ গ্রন্থটির আলোচ্য বিষয় বর্বর তাতারীদের ঘৃন্য জঘন্য ইতিহাস। লেখক প্রতিষ্ঠিত সত্যের পাটাতনে দাঁড়িয়ে বলে গেছেন ইতিহাসের দাস্তান। সেই সঙ্গে ইসলামের শাশ্বত বিশ্বাস বরিত চরিত্র এবং মুসলমানদের রক্তে নির্মিত ঐতিহ্য ও আদর্শের প্রতি যতড়ববান থেকেছেন পূর্ণ সতর্কতায়। লেখকের গদ্য বড় অদ্ভুত সুন্দর। সহজ। সুখপাঠ্য। শক্তিমান ও প্রাঞ্জল। আরবী আধুনিক এবং বর্ণনাভঙ্গি ঋজু। ইতিহাসের গ্রন্থ বলে শব্দ ব্যবহারে ভাষা প্রাচুর্যও লক্ষণীয়। সবমিলিয়ে ‘তাতারীদের ইতিহাস’ একটি বর্ণাঢ্য রচনা। বর্ণনার ধারাবাহিকতা, তথ্যের সহজ উপস্থাপন, কাহিনীর বিন্যাস, ঘটনা চয়নের নিপূণতা, ইতিহাসের চুলচেরা বিশ্লেষণ ইত্যাদির মাধ্যমে ইতিহাসের একঘেয়ে ও জটিল আবহ থেকে পাঠককে বের করে নিয়ে এমন এক অদ্ভুত উপলব্ধির জগত নির্মাণ করেন, এখান থেকে বের হতে সময় লাগে। লেখক ইতিহাসের নির্মোহ কথকের মত শুধু ঘটনা-ঘনঘটার বয়ান দিয়ে যান নি; তিনি জায়গায় জায়গায় বিরতি নিয়েছেন, ঘটনার কারণ বিশ্লেষণ করেছেন, আহাজারি করেছেন, বর্তমানকে অতীতের সাথে মিলিয়ে দেখিয়েছেন। বারবার বলেছেন ইতিহাস পুনরাবৃত্ত হয়। তাতারীদের আমরা অতীতের অচেনা কোন ভূমিতে রেখে আসিনি। তাতারদের পেছনে রেখে আসা যায় না। ইসলাম ও মুসলমানদের জন্য, সত্যিকার অর্থে তাবৎ পৃথিবীর জন্যে এরা সার্বজনীন, সর্বকালের। লেখক তিরস্কার আর মমতার ছুরি দিয়ে আমাদের চেতনা ও অনুভূতিকে তুমুল আঘাতে রক্তাক্ত করতে চেয়েছেন। বলতে চেয়েছেন উত্থান পতনই এই পৃথিবীর জীবনছন্দ এবং যুদ্ধে পরাজয় কোনো বীরের জন্যে সাময়িক অপমান হতে পারে; আবার সেটাই হতে পারে তার জাতির জন্যে বিজয়ের পাঠ ও পাঠশালা। এ কারণেই আমাদের পূর্বসূরি মনীষীগণ শত্রুর কয়েদখানায় বসেও জিহাদের দাস্তান লিখতে ভুলেন নি। কয়লার কালিতে কাফনের কাপড়ে ইতিহাস লেখার ইতিহাস তো আমাদেরই। সে হিসেবে তাতারীদের কাহিনী আমাদের তরুণদের দৃষ্টির আড়ালেই রয়ে গেছে। এটি আমাদের আলোচনায় আসা একান্ত দরকার। ‘আইনে জালূত’ আমাদের বিজয়ের মাঠ। ‘ইমাম কুতয’ আমাদের নায়ক নন; মহা নায়ক। আমাদের আদর্শ ও চেতনার অমর তেজস্বী শিক্ষক। তার ‘মান লিল ইসলাম ইন লাম নাকুন নাহনু’-র আওয়াজ আজো বাতাসে ভাসে। অথচ আমরা তাকে চিনিই না! তাতার আমাদের মুসলমানদের জন্য সবসময়ই প্রাসঙ্গিক। বর্তমান সময়ে আরো বেশি প্রাসঙ্গিক। দোয়া করি এটি আমাদের তরুণদের হাতে হাতে উঠে আসুক। ‘ওয়া ইসলা..মা....হ’ বলে আইনে জালুতের মাঠে কুতযের সেই পাষাণ নিনাদ আমাদের রক্তে কাঁপন ধরাক। মাওলানা আবদুল আলীম অনূদিত এই গ্রন্থ তার বিষয় তথ্যশক্তি টার্গেট এবং ভাষার সৌকর্যে আমাদের বাঙলা সাহিত্যে একটি উত্তম সংযোজন বলে বিবেচিত হবে। ইনশাআল্লাহ

সঠিক মূল্য

সকল পণ্য তুলনামূলকভাবে বাজারের সমমূল্যে বা এর চেয়ে কম মূল্যে বিক্রয় করা হয়

ডেলিভারী

বাংলাদেশের যে-কোন প্রান্তে ২-৫ দিনের মধ্যে পণ্য পৌঁছে দেয়া হয়

নিরাপদ পেমেন্ট

বাংলাদেশের সবচেয়ে জনপ্রিয় ও নিরাপদ পেমেন্ট পদ্ধতি মাধ্যমে পেমেন্টের সুযোগ

২৪/৭ কাস্টমার কেয়ার

সার্বক্ষণিক কেনাকাটার জন্য সার্বক্ষণিক সহায়তা
পণ্যটি সফলভাবে কার্টে যুক্ত হয়েছে     কার্ট দেখুন